তাড়াহুড়োর মাসুল! ট্যাবের টাকা পাঠাতে গিয়ে হোঁচট প্রশাসনের

ট্যাবের টাকা অ্যাকাউন্টে পাঠাতে গিয়ে নাকাল প্রশাসন। সূত্রের খবর, সময় কম থাকায় অনেক ক্ষেত্রেই অ্যাকাউন্টের তথ্য দিতে ভুলভ্রান্তি হয়েছে স্কুল কর্তৃপক্ষের তরফে। বিধানসভা নির্বাচনের আগে তাড়াহুড়ো করতে গিয়েও বেশ কিছু খামতি থেকে গেছে। আর এর জেরেই হোঁচট খেয়েছে পড়ুয়াদের জন্য মুখ্যমন্ত্রীর সাধের প্রকল্প।     

করোনার আবহে অনলাইন ক্লাসের সুবিধার জন্য ট্যাব কিনতে উচ্চমাধ্যমিক এবং হাই মাদ্রাসার পড়ুয়াদের টাকা দেওয়া শুরু করেছে রাজ্য। ২১ জানুয়ারি, বৃহস্পতিবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আনুষ্ঠানিকভাবে এর সূচনা করেন। তিনি জানিয়েছিলেন, এক সপ্তাহের মধ্যেই রাজ্যের ৯ লক্ষ পড়ুয়ার অ্যাকাউন্টে   ট্যাব কেনার টাকা পৌঁছে দেওয়া হবে। কিন্তু সেই টাকা ব্যাঙ্কের অ্যাকাউন্টে পাঠাতে গিয়েই সমস্যায় পড়তে হচ্ছে জেলা প্রশাসনকে। দক্ষিণ ২৪ পরগণা জেলা স্কুল পরিদর্শক কার্যালয়ের তরফে একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়। 

সেই নির্দেশিকায় স্কুল কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে, একাধিক পড়ুয়ার অ্যাকাউন্টে টাকা পাঠানোর ক্ষেত্রে সমস্যা দেখা যাচ্ছে। সমাধানের জন্য কী ব্যবস্থা নিতে হবে, তার একটি তালিকাও পাঠানো হবে। তার আগে স্কুলগুলিকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, অ্যাকাউন্ট সংক্রান্ত যে ভুল রয়েছে তা সংশোধন করার ব্যবস্থা করতে। মূলত যে সমস্যা গুলি প্রশাসনের নজরে এসেছে তা হল, ১) স্কুলের তরফে অনেক ক্ষেত্রে ই-পোর্টালে অ্যাকাউন্ট-এর বিবরণ ভুল দেওয়া হয়েছে। ২) বেনিফিসিয়ারি অ্যাকাউন্ট অ্যাকটিভ নেই বা kyc আপডেট করা হয়নি। ৩ )  বেশ কিছু ব্যাঙ্ক সংযুক্ত হওয়ায় IFSC কোডের ক্ষেত্রেও সমস্যা দেখা গেছে। 

এই সমস্যাগুলি মাথায় রেখেই স্কুল কর্তৃপক্ষকে প্রয়োজনীয় সংশোধন করার নির্দেশ দিয়েছেন জেলা স্কুল পরিদর্শক। ২৭ জানুয়ারির মধ্যে পড়ুয়াদের থেকে সঠিক অ্যাকাউন্ট তথ্য নিয়ে সংশ্লিষ্ট অফিসে জমা দিতে হবে। আর যাঁদের অ্যাকাউন্ট অ্যাকটিভ নেই বা kyc আপডেট করা হয়নি, সেখানে অভিভাবককে ব্যাংকের সঙ্গে যোগাযোগ করে বিষয়টি মিটিয়ে নিতে হবে। এই ক্ষেত্রে জমা দেওয়ার জন্য ২৮ জানুয়ারি অবধি তাঁদের সময় রয়েছে। 

উল্লেখ্য, সমস্যার আঁচ করে আগেই রাজ্য সরকারকের কাছে অতিরিক্ত সময়ের আবেদন করেছিলেন শিক্ষকদের একাংশ। তাঁদের দাবি ছিল, তাড়াহুড়ো করলে    কোনও নাম বাদ পড়ে যেতে পারে, ভুল হতে পারে।    


Tags

Post a Comment

0 Comments
* Please Don't Spam Here. All the Comments are Reviewed by Admin.