আম্বানির বাড়ির সামনে বোমা, গ্রেফতার মুম্বই পুলিশের ‘এনকাউন্টার স্পেশালিস্ট’

রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রির কর্ণধার তথা দেশের অন্যতম শিল্পপতি মুকেশ আম্বানির বাড়ির সামনে বোমা উদ্ধার হয়েছিল কয়েকদিন আগে। যা নিয়ে তোলপাড় গোটা দেশ। ঘটনার তদন্ত শুরু করে মুম্বই পুলিশ। পরে তদন্তে নামে জাতীয় তদন্তকারী সংস্থা NIA গোয়েন্দারা। এই ঘটনার তদন্তে নেমে জাতীয় তদন্তকারী সংস্থা আটক করেছিল মুম্বই পুলিশের এক অফিসারকে। তাঁকে শনিবার রাত থেকে টানা ১২ ঘন্টা জেরা করে অবশেষে গ্রেফতার করা হয়েছে। ওই পুলিশ অফিসারের নাম শচীন ওয়াজেদ। গত ২৫ ফেব্রুয়ারি মুম্বইয়ে মুকেশ আম্বানির বাড়ির সামনে বোমা রাখার ঘটনায় যুক্ত বলেই দাবি এনআইএ-এর গোয়েন্দাদের।

 ঘটনার মোড় নেয় মুম্বইয়ের ব্যবসায়ী মনসুখ হিরণ খুন হওয়ার পর। মুকেশের বাড়ির সামনে যে গাড়িতে বোমা পাওয়া যায়, সেটি ছিল মনসুখের। অভিযোগ ওঠে মুম্বই পুলিশের ‘এনকাউন্টার স্পেশালিস্ট’ শচীন ওয়াজেদই খুন করেছেন ওই ব্যবসায়ীকে। এরপরই তাঁকে পদ থেকে সরিয়ে দেয় মুম্বই পুলিশ। ঘটনার তদন্তে নেমে এনআইএ তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করতেই বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য সামনে আসে। পরে ওই এনকাউন্টার স্পেশালিস্টকে গ্রেফতার করে এনআইএ। এই গ্রেফতারির ঘটনার পর মহারাষ্ট্রে শিবসেনা সরকারের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে বিজেপি। গেরুয়া শিবিরের এক মুখপাত্রের দাবি, ‘শেষ পর্যন্ত শচীন ওয়াজেকে এনআইএ গ্রেপ্তার করেই নিল। তাঁকে বাঁচানোর চেষ্টা করে যাওয়া শিবসেনা সরকার কি এবার ক্ষমা চেয়ে শচীনের নারকো টেস্টের দাবি জানাবে?’ তবে এই ঘটনায় ইতিমধ্যেই জঙ্গি যোগও সামনে আসছে। তিহার জেলে বন্দি কুখ্যাত জঙ্গি তেহসিন আখতারের নাম সামনে আসছে তদন্তে। 

Tags

Post a Comment

0 Comments
* Please Don't Spam Here. All the Comments are Reviewed by Admin.