১০০ দিনের কাজে রাজ্যই সেরা, দাবি মুখ্যমন্ত্রীর

আন্তর্জাতিক মঞ্চে ‘কন্যাশ্রী’ প্রকল্পের প্রশ্নাতীত সাফল্যের পর এবার দুয়ারে সরকার ও পাড়ায় সমাধান কর্মসূচিকে বিশ্বমঞ্চে তুলে ধরতে মরিয়া মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বুধবার নবান্ন থেকে সাংবাদিক বৈঠকে এই দুটি প্রকল্প নিয়ে দুটি বইও প্রকাশ করলেন মুখ্যমন্ত্রী। এদিন তিনি বলেন, দুয়ারে সরকার প্রকল্পও দারুণ সাফল্য পেয়েছে। দুয়ারে সরকার কর্মসূচিতে মোট ১২টি প্রকল্প রয়েছে। মুখ্যমন্ত্রী এদিন জানান, দুয়ারে সরকার কর্মসূচিতে এখনও পর্যন্ত ১ কোটি ৩০ লাখ মানুষকে পরিষেবা প্রদান করা হয়েছে। দুয়ারে সরকার ক্যাম্পগুলিতে নাম লিখিয়েছেন ২ কোটি ৫৫ লক্ষ মানুষ। এরমধ্যে শুধুমাত্র স্বাস্থ্য প্রকল্পেই নাম তুলেছেন ৭৬ লাখ মানুষ। তিনি বলেন, রাজ্যের ১০ কোটি মানুষই স্বাস্থ্যসাথীর আওতায় এলে খুশি হব। আবার পাড়ায় পাড়ায় সরকার কর্মসূচিতেও সাফল্য আসছে বলে দাবি করেন মুখ্যমন্ত্রী। 

মুখ্যমন্ত্রী আরও বলেন, সমস্যা সমাধানের জন্যই বাড়ির দুয়ারে প্রশাসনকে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। এখনও কেউ কোনও সরকারি প্রকল্পের সুবিধা না পেলে যাতে নাম নথিভুক্ত করতে পারেন, তার জন্যই ‘দুয়ারে সরকার’ কর্মসূচি নেওয়া হয়েছে। তবে তিনি স্বীকার করে নেন, জেলায় জেলায় কিছু সমস্যা হচ্ছে। তারজন্য এদিন জেলার ডিএম, এসডিও বা এসপি-দের আরও ভালোভাবে কাজ করার নির্দেশ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি বলেন, ‘জেলাশাসক, মহকুমাশাসকরা খুব ভাল কাজ করেছেন, কিন্তু আরও কাজ করতে হবে, কাজের কোনও শেষ নেই’। পরিযায়ী শ্রমিকদের নিয়েও এদিন তথ্য দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। তাঁর দাবি, লকডাউন এবং তার পরে রাজ্যে ৩ লাখ ৮১ হাজার ৬০৪ জন শ্রমিককে নতুন করে জব কার্ড দেওয়া হয়েছে। ৬৪ লাখ পরিয়ায়ী শ্রমিক কাজ পেয়েছেন। এরপরই তিনি দাবি করেন ১০০ দিনের কাজে পশ্চিমবঙ্গ দেশের মধ্যে প্রথম। রাজ্যে ৩৬ কোটি কর্মদিবস তৈরি হয়েছে আর কাজ করেছেন ১ কোটি ১ লাখ মানুষ। 


Tags

Post a Comment

0 Comments
* Please Don't Spam Here. All the Comments are Reviewed by Admin.