রূপচর্চায় গোলাপ জলের জাদু

রূপচর্চায় জুড়ি নেই গোলাপ জলের। সেই প্রাচীনকাল থেকে ত্বকের সৌন্দর্য বৃদ্ধিতে গোলাপ জলের ব্যবহার হয়ে আসছে। মূলত, গোলাপ ফুলের পাপড়ি জলে ভিজিয়ে রেখে তৈরি করা হয় গোলাপ জল। নরম এবং মসৃণ ত্বক পেতে ও সব ধরনের ত্বকের সমস্যা সমাধানে সাহায্য করে গোলাপ জল। রাতে শোয়ার আগে এটি সরাসরিও মুখে ব্যবহার করতে পারেন। মুখ ধোওয়ার পরে অল্প তুলোয় গোলাপ জল নিয়ে মুখের নিচ থেকে ওপর দিকে আলতো করে বুলিয়ে নিতে পারেন।

সরাসরি তো বটেই ফেস প্যাক, স্ক্রাব ও স্কিন টোনার সব কিছুর সঙ্গেই গোলাপের জল মিশিয়ে নেওয়া যায়। জেনে নিন ত্বকের যত্নে গোলাপ জল কীভাবে ব্যবহার করতে পারেন।

১) ত্বকের রুক্ষতা কমাতে গোলাপ জল

শীত তো বটেই অনেকেই সারাবছর রুক্ষ ও শুষ্ক ত্বকের সমস্যায় ভোগেন। এই সমস্যা থেকে রেহাই দিতে পারে গোলাপ জল। মুখ ধোয়ার পরে সারা মুখে গোলাপ জল স্প্রে করে নিন।এরপর ময়শ্চারাইজার লাগিয়ে নিলেই অনেকক্ষণ নরম থাকবে মুখ।

২) টোনার হিসেবে ব্যবহার 

নামী-দামি বিভিন্ন ফেস টোনার তো অনেক ব্যবহার করেছেন। সেসবে অনেক সময়ই থাকে রাসায়নিক। তবে প্রাকৃতিক টোনার হিসেবে আপনি ব্যবহার করতে পারেন গোলাপ জল। গোলাপ জলে আছে অ্যান্টি ব্যাকটোরিয়াল গুণ। 

৩) ফেস মাস্ক লাগানোর আগে গোলাপ জল

বিভিন্ন ঘরোয়া ফেস প্যাক মুখে লাগানোর আগে গোলাপ জল লাগিয়ে নিন। তুলোয় গোলাপ জল নিয়ে সেটি সারা মুখে লাগিয়ে নিন। তারপর ফেস প্যাক লাগান। এতে ফেস প্যাক আরও ভাল কাজ করবে। 

৪) স্নানের জলে মিশিয়ে 

সারাদিন কাজের পর যদি সকলেই খুব ক্লান্ত অনুভব করেন। বাড়ি ফিরে স্নানের জল হালকা গরম করে নিন। সেই জলে মিশিয়ে নিন গোলাপ জল। ম্যাজিকের মতোই উধাও হবে আপনার ক্লান্তি ভাব।   


Tags

Post a Comment

0 Comments
* Please Don't Spam Here. All the Comments are Reviewed by Admin.