নন্দীগ্রামে মমতার মুখোমুখী শুভেন্দুই, ইঙ্গিত দিলেন দিলীপ

নন্দীগ্রাম থেকেই ভোটে লড়বেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আগামী শিবরাত্রির দিনই তিনি মনোনয়নপত্র জমা করবেন বলেই আপাতত খবর। এখন লাখ টাকার প্রশ্ন হল তাঁর বিরুদ্ধে কি শুভেন্দু অধিকারীই বিজেপি প্রার্থী হচ্ছেন? এই ব্যাপারে স্পষ্ট করে কিছু না জানালেও বড়সড় ইঙ্গিত দিলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। বুধবারই এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বললেন, ‘নন্দীগ্রামে শুভেন্দু অধিকারীর নাম আলোচনায় আছে’। উল্লেখ্য শুভেন্দুই নন্দীগ্রামের বিদায়ী বিধায়ক। 

মূলত শুভেন্দুর নিজের হাতে গড়া এখানকার তৃণমূলের সংগঠন। এখন তৃণমূল কংগ্রেস ছেড়ে পদ্ম শিবিরে নাম লিখিয়েছেন তিনি। ফলে তৃণমূলের সংগঠনেও বড়সড় ফাটল ধরেছে একথা বলাই বাহুল্য। শুভেন্দুর অনুগামী অনেকেই ঘাসফুল ছেড়ে পদ্মফুলে চলে এসেছেন। আবার শুভেন্দু ঘনিষ্ঠ মহলের দাবি, অনেকে তৃণমূলে থেকে গেলেও মন থেকে শুভেন্দুরই অনুগামী রয়ে গিয়েছেন। এই পরিস্থিতিতে মর্যাদার আসন নন্দীগ্রাম বাঁচাতেই তৃণমূল নেত্রী নিজে সেখান থেকে দাঁড়াতে চেয়েছেন। কিন্তু শুভেন্দুও তাঁকে খোলা চ্যালেঞ্জ দিয়ে রেখেছেন, যে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নন্দীগ্রাম থেকে দাঁড়ালে তাঁকে হাফ লাখ (৫০ হাজার) ভোটে হারাবেন। 


বুধবার রাজ্য বিজেপির সভাপতি বলেন, আজ (বুধবার) দলের নির্বাচনী কমিটির গুরুত্বপূর্ণ বৈঠক রয়েছে। সেখানে প্রথম দুই দফার ভোটের প্রার্থী তালিকা নিয়ে আলোচনা হবে। উল্লেখ্য, ইতিমধ্যেই একেকটি আসনে দুই থেকে তিনজনের নাম দিল্লিতে চলে গিয়েছে। সেখান থেকেই বেছে নেওয়া হবে চুরান্ত নাম। তাঁকে শুভেন্দুর নাম নিয়ে প্রশ্ন করা হলে, দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘তাঁর সঙ্গে এবিষয়ে কথা হয়নি। তবে ওনার নাম এসেছে’। তবে তিনি এও জানান, ওই বিধানসভা আসনের সামগ্রিক পরিস্থিতি এবং ওই কেন্দ্রে (নন্দীগ্রাম) প্রার্থীর জয়ের সম্ভাবনা আছে কিনা সেই সব বিষয়ই খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তবে প্রার্থী তালিকা চূড়ান্ত হয়নি। মার্চের ৪-৫ তারিখের মধ্যে প্রথম দুই দফার ভোটের প্রার্থী তালিকা প্রকাশ হয়ে যাবে।


Post a Comment

0 Comments
* Please Don't Spam Here. All the Comments are Reviewed by Admin.